আজ শুক্রবার, ০১ মার্চ ২০২৪, ০৭:২৫ পূর্বাহ্ন

Logo
বিদ্যুৎ বিভাগ ৮ লাখ ২১ হাজার স্মার্ট প্রি-পেইড মিটার কিনছে

বিদ্যুৎ বিভাগ ৮ লাখ ২১ হাজার স্মার্ট প্রি-পেইড মিটার কিনছে

 

পল্লী জনপদ ডেস্ক॥

দেশের তিনটি অঞ্চলের জন‌্য ৮ লাখ ২১ হাজার ৫৪৪টি স্মার্ট প্রি-পেইড মিটার কেনার উদ‌্যোগ নিয়েছে বাংলাদেশ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড। ‘স্মার্ট প্রি-পেইড মিটারিং প্রজেক্ট ইন ডিস্ট্রিবিউশন জোনস অব বিপিডিবি’ শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় মিটারগুলো কেনা হবে। এ জন্য মোট ব্যয় হবে ৫২৬ কোটি ৬৫ লাখ ৮৮ হাজার ১৭২ টাকা। পৃথক তিনটি দরপত্রের মাধ্যমে মিটারগুলো কেনা হবে। বিদ্যুৎ বিভাগ সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

জানা গেছে, এই প্রকল্পটি ২০২২ সালের ২২ ফেব্রুয়ারি তারিখে একনেক সভায় অনুমোদিত হয়। প্রকল্পটি মোট ৬১৯ কোটি ৩০ লাখ ৭৬ হাজার টাকা প্রাক্কলিত ব্যয়ে ২০২২ সালের মার্চ থেকে ২০২৫ সালের ফেব্রুয়ারি মেয়াদে বাস্তবায়নের জন্য অনুমোদিত হয়। চট্টগ্রাম, কুমিল্লা, সিলেট ও ময়মনসিংহ জোনের ১৫ লাখ গ্রাহককে স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটারিং সেবার আওতায় আনার জন্য প্রকল্পটি ৪টি প্যাকেজে বিভক্ত করা হয়। প্রকল্পটি বাংলাদেশ সরকার, বিদ্যুৎ বিভাগের নিজস্ব অর্থ এবং এশিয় উন্নয়ন ব্যাংক (এডিবি) এর অর্থায়নে বাস্তবায়ন করা হবে।

প্রকল্পের ৪টি প্যাকেজের মধ্যে প্যাকেজ পিপিএমএস-জি-২ এর আওতায় বিদ্যুৎ বিতরণ অঞ্চল সিলেট জোন, বাবিউবো’র জন্য ১,১৬,২৪৯টি স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার কেনা হবে। এরমধ্যে সিঙ্গেলফেস মিটারের সংখ্যা ১ লাখ ১১ হাজার ৭৮১ টি এবং থ্রিফেস মিটার চার হাজার ৪৬৮টি।

প্রকল্প বিষয়ে এডিবি’র পরামর্শের ভিত্তিতে যথাযথ পদ্ধতি অনুসরণ করে ২০২১ সালের ১৮ আগস্ট তারিখে এক ধাপ দুই খাম পদ্ধতিতে আন্তর্জাতিক উন্মুক্ত দরপত্র আহ্বান করা হয়। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে ৪টি প্রতিষ্ঠান দরপত্র দাখিল করে। দরপত্র উন্মুক্তকরণ কমিটি কর্তৃক কারিগরি প্রস্তাবসমূহ উন্মুক্ত করা হয় এবং ২০২২ সালের ৩১ মার্চ তারিখে করিগরি মূল্যায়ন প্রতিবেদন দাখিল করা হয়। দরপত্রে যৌথভাবে বাংলাদেশের আইডিয়াল ইলেক্ট্রিকাল এন্টারপ্রাইজ লিমিটেড এবং চীনের ইনহিমিটার কোম্পানি লিমিটেড সর্বনিম্ন দরদাতা হিসেবে তারা এই স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটারগুলো সরবরাহ করবে। এতে মোট ব্যয় হবে ৭৩ কোটি ৩১ লাখ ৯৭ হাজার ৮৯৬ টাকা।

সূত্র জানায়, চট্টগ্রাম জোনের জন্য প্রকল্পের আওতায় পিপিএমএস-জি-১ প্যাকেজে মোট ৩ লাখ ৯৭ হাজার ৫২৩টি স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার সংগ্রহ করা হবে। এরমধ্যে ৩ লাখ ৮৭ হাজার ৫৭৪টি সিঙ্গেল ফেইজ এবং ৯ হাজার ৯৪৯ টি থ্রি ফেইজ স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার রয়েছে। এই প্যাকেজের জন্য আন্তর্জাতিক দরপত্র আহ্বান করা হলে মোট ৫টি দরপত্র জমা পরে। এরমধ্যে ৩টি দরপত্র নন-রেসপন্সিভ হয়। রেসপন্সিভ ২ দরদাতার মধ্যে হেক্সিং ইলেক্ট্রিকাল কোম্পানি লিমিটেড সর্বনিম্ন দরদাতা হিসেবে মিটারগুলো সরবরাহ করবে। এতে ব্যয় হবে ২৪৩ কোটি ৬৩ লাখ ৫৯ হাজার ৭৪৭ টাকা।

এছাড়া, একই প্রকল্পের প্যাকেজ পিপিএমএস-জি-৩ এর অধীনে কুমিল্লা জোনের জন্য ৩ লাখ ৭ হাজার ৭৭২ টি স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার সংগ্রহ করা হচ্ছে। এরমধ্যে সিঙ্গেল ফেইজ মিটার ২ লাখ ৯৮ হাজার ২২৬টি এবং থ্রি ফেইজ ৯ হাজার ৫৪৬টি। এই মিটার সংগ্রহের জন্য আন্তর্জাতিক দরপত্র আহ্বান করা হলে ৫টি দরপত্র জমা পড়ে। এরমধ্যে ৩টি নন-রেসপন্সিভ হয়। বাকি দুই দরদাতার মধ্যে সর্বনিম্ন দরদাতা হিসেবে হেক্সিংইলেক্ট্রিক কোম্পানি লিমিটেড, চীন মিটারগুলো সরবরাহ করবে। এতে ব্যয় হবে ১৮৯ কোটি ৭০ লাখ ৩০ হাজার ৪২৯ টাকা।

সূত্র জানায়, ক্রয় প্রস্তাব তিনটি অনুমোদনের জন্য সরকারি ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির পরবর্তী সভায় উপস্থাপন করা হবে। কমিটির অনুমোদন পেলেই দরদাতা সরবরাহকারীদের সঙ্গে চুক্তি করা হবে।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2017
Developed By

Shipon