আজ বৃহস্পতিবার, ১৮ Jul ২০২৪, ০৭:৩১ অপরাহ্ন

Logo
সন্তানের নির্যাতনে বিধবা মা হাসপাতালে

সন্তানের নির্যাতনে বিধবা মা হাসপাতালে

 

সন্তানের নির্যাতনে বিধবা মা হাসপাতালে

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥

দুই ছেলের অমানুষিক নির্যাতনে রক্তাক্ত জখম হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন বিধবা মা সুশিলা রায় (৬৫)। এ ঘটনায় শনিবার (০৪ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। হৃদয় বিদারক এ ঘটনাটি ঘটেছে জেলার আগৈলঝাড়া উপজেলার জোবারপাড় গ্রামে।

ওই গ্রামের মৃত সুরেশ রায়ের বিধবা স্ত্রী আহত সুশিলা রায় বলেন, বিগত প্রায় নয় বছর পূর্বে আমার দিনমজুর স্বামীর মৃত্যুর পর থেকে অদ্যবর্ধি বড় ছেলে শংকর রায় ও মেঝ ছেলে ঝন্টু রায় আমার কোন ভরন পোষন দেয়নি। আমি আমার ছোট ছেলে কাঠমিস্ত্রির কাজ করা মন্টু রায়ের উপার্জনের অর্থে কোনরকম জীবন যাপন করছি। তিনি আরো বলেন, কয়েক বছর পূর্বে শংকর ও ঝন্টু মিলে আমার কাছ থেকে ৫০ হাজার টাকা ধার নেয়। ওই টাকা চাইতে গেলে তারা দু’জনে প্রায়ই আমাকে মারধর করে আসছিলো। এনিয়ে স্থানীয়ভাবে একাধিকবার সালিশ বৈঠকের আয়োজন করা হলেও শংকর ও ঝন্টু কোন বৈঠকেই উপস্থিত হয়নি।

বিধবা সুশিলা রায় বলেন, শনিবার সকাল নয়টার দিকে বড় ছেলে শংকর রায় ও মেঝ ছেলে ঝন্টু রায়ের কাছে পাওনা টাকা চাইতে গেলে তারা টাকা দিবেনা বলে জানিয়ে দেয়। এনিয়ে বাগ্বিতন্ডার একপর্যায়ে শংকর, ঝন্টু ও একইবাড়ির তুষার রায় অমানুষিক নির্যাতন করে আমাকে রক্তাক্ত জখম করেছে। খবর পেয়ে গৌরনদীতে কাঠ মিস্ত্রির কাজ করতে যাওয়া আমার ছোট ছেলে মন্টু রায় বাড়িতে পৌঁছে মুমূর্ষ অবস্থায় আমাকে উদ্ধার করে উপজেলা হাসপাতালে ভর্তি করেছে। বিধবা সুশিলা রায় তার ওপর হামলাকারী দুই ছেলে ও একই বাড়ির তুষার রায়কে গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করেছেন।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2017
Developed By

Shipon